আচার্য্য চাণক্যের বাণী

Published : আগস্ট ১৯, ২০১৬ | 1877 Views

তক্ষশিলা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক এবং প্রাচীণ
ভারতের মহান কূটনীতিবিদ আচার্য্য চাণক্যের কিছু
অমর বাক্য :-
.
1. অপরের ভুল থেকে নিজে শিক্ষা নাও । কারণ,
সবকিছু নিজের উপর প্রয়োগ করে শিখতে
চাইলে তোমার আয়ু কম পড়বে ।
.
2. কোনো ব্যক্তির খুব বেশী সহজ-সরল হওয়া
উচিৎ নয় । কারণ, সোজা গাছ এবং সোজা মানুষদের
প্রথমে কাটা হয় ।
.
3. যদি কোনো সাপ বিষধর নাও হয়, তবুও তার উচিৎ
বিষধর হওয়ার ভান করা– এমনভাবে, যেন মনে হয়
সে ইচ্ছা করলেই বিষাক্ত দংশন করতে পারে ।
একই ভাবে দূর্বল ব্যক্তিদেরও সবসময় নিজেদের
দূর্বলতাগুলি লুকিয়ে রাখা উচিৎ, যেন অপরে তার
আভাষমাত্র না পায় ।
.
4. প্রত্যেক মিত্রতার পেছনে কোনো না
কোনো স্বার্থ অবশ্যই থাকে । এটা একটা কটূ
সত্য ।
.
5. কোনো কাজ শুরু করার আগে সর্বদা
নিজেকে এই তিনটি প্রশ্ন করবে :-আমি এটা কেন
করতে চলেছি ? এর পরিনাম কী হতে পারে ?
আমার সফলতার সম্ভাবনা কতটা ?
যদি ঐ প্রশ্নগুলির সন্তোষজনক উত্তর পেয়ে
যাও, তবেই কাজ শুরু কর ।
.
6. একবার কোনো কাজ শুরু করার পর আর অসফল
হওয়ার ভয় রাখবে না, এবং কাজ ছাড়বে না । যারা নিষ্ঠার
সাথে কাজ করে তারাই সবচেয়ে সুখী ।
.
7. সবচেয়ে বড় গুরুমন্ত্র হল, কখনও নিজের
গোপন বিষয় অপরকে জানাবে না, এটা তোমাকে
ধ্বংস করে দেবে ।
.
8. কোনো কাজ কালের জন্য ফেলে রাখা উচিৎ
নয় । পরের মূহুর্তে কী ঘটতে চলেছে তা
কে বলতে পারে ?
.
9. যা ঘটে গেছে তা ঘটে গেছে । যে সময়
অতীত হয়েছে সেটা নিয়ে ভেবে অনুশোচনা
করে সময় নষ্ট করা অর্থহীন । যদি তোমার দ্বারা
কোনো ত্রুটি হয়ে থাকে, তবে তা থেকে
শিক্ষা নিয়ে বর্তমানকে শ্রেষ্ঠ করার চেষ্টা করা
উচিৎ । যাতে ভবিষ্যৎকে সুরক্ষিত রাখা যায় ।
.
10. কোনো দূর্বল ব্যক্তি বা রাষ্ট্রের সাথে
শত্রুতা করা আরও বেশী বিপদের । কারণ, সে
এমন সময় এবং এমন জায়গায় আঘাত করতে পারে
যেটার আমরা কল্পনাও করিনি ।
.
11. অহংকারের মতো শত্রু নেই । সর্বদা নশ্বরতার
কথা মনে রাখবে ।
.
12. একটি দোষ অনেক গুণকেও গ্রাস করে ।
.
13. ইন্দ্রিয়গুলিকে নিজের নিয়ন্ত্রণে রাখ ।
ইন্দ্রিয়ের যে অধীন, তার চতুরঙ্গ সেনা
থাকলেও সে বিনষ্ট হয় ।
.
14. সর্বদা চুপচাপ এবং গুপ্তরূপে কাজ করা উচিৎ ।
.
15. যে ব্যক্তি নিশ্চিতকে ছেড়ে অনিশ্চিতের
দিকে ধাবিত হয়, তার উভয়ই নষ্ট হয় ।
.
16. অতি সুন্দরতার কারণে সীতার হরণ হয়েছিল, অতি
গর্বের কারণে রাবণের পতন হল, এবং অতি দানী
হওয়ার জন্য বলিকে পাতালে যেতে হয়েছিল ।
সুতরাং “অতি” কে সর্বদা ত্যাগ করা উচিৎ ।
.
17. ভয়কে কেবল ততক্ষণ ভয় কর, যতক্ষণ সেটা
তোমার থেকে দূরে আছে ।
.
18. তোমার প্রতিবন্ধকতাকে (বাধা) তোমারই
পক্ষে কাজে লাগাও । যদি তুমি অবস্থাকে নিজের
পক্ষে আনতে না পার, তবে শত্রুদের জন্য তা
জটিল করে দাও ।

সংগ্রহ

Published : আগস্ট ১৯, ২০১৬ | 1877 Views

  • img1

  • Helpline

    +880 1709962798